মঙ্গলবার ১৮ মে ২০২১ ৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮

চার মাস জামিন চাইতে পারবেন না বগুড়ার এক দম্পতি
ডেল্টা টাইমস ডেস্ক :
প্রকাশ: মঙ্গলবার, ৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২১, ৩:৫৬ পিএম | অনলাইন সংস্করণ

শাশুড়ির প্রায় শত কোটি টাকা আত্মসাতের অভিযোগে করা মামলায় গ্রেফতার বগুড়ার এক দম্পতি জামিন আবেদনে প্রতারণার আশ্রয় নেয়ায় চার মাস কোনো আদালতে জামিন চাইতে পারবেন না বলে আদেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট। ওই দম্পতি হলেন- আনোয়ার হোসেন রানা ও আকিলা সরিফা সুলতানা খানম আঞ্জুয়ারা।

মঙ্গলবার (৯ ফেব্রুয়ারি) তাদের জামিন আবেদন সরাসরি খারিজ করে দিয়ে হাইকোর্টের বিচারপতি এম.ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি মো. মোস্তাফিজুর রহমানের সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চ এই আদেশ দেন।

আদালতে আজ আসামিদের পক্ষে শুনানি করেন অ্যাডভোকেট গোলাম আব্বাস চৌধুরী দুলাল। রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল মো. সারওয়ার হোসেন বাপ্পী।

নিম্ন আদালতের কোনো জামিন খারিজ আদেশের বিরুদ্ধে আসামিপক্ষ হাইকোর্টের একটি বেঞ্চে জামিন চাওয়ার সুযোগ পাবেন। কিন্তু এই মামলার আসামিরা তথ্য গোপন করে তিনটি বেঞ্চে জামিন চেয়েছেন। যা আদালতের সঙ্গে প্রতারণার শামিল।
   ফাইল ছবি

ফাইল ছবি


আদালতে ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল মো. সারওয়ার হোসেন বাপ্পী বলেন, গত বছরের ৩ ডিসেম্বর নিম্ন আদালতে তাদের জামিন আবেদন খারিজ হয়। ওই খারিজাদেশের বিরুদ্ধে তারা প্রথমে হাইকোর্টের একটি বেঞ্চে জামিন আবেদন করেন। সেখানে রুল জারি হয়। পরে তারা আরও একটি বেঞ্চে ফের জামিন আবেদন করেন। সর্বশেষ এই আদালতে তারা জামিন আবেদন করেন।

বিষয়টি আদালতের নজরে আসায় মঙ্গলবার তাদের আবেদন সরাসরি খারিজ করে দেন হাইকোর্ট। পাশাপাশি চার মাস তারা জামিন চাইতে পারবেন না বলে আদেশ দেন।

গণমাধ্যমে প্রকাশিত তথ্য অনুসারে, বগুড়ার সরিফ বিড়ি ফ্যাক্টরির মালিক শেখ সরিফ উদ্দিনের মৃত্যুর পর তার স্ত্রী দেলওয়ারা বেগম সব ব্যবসাপ্রতিষ্ঠানের দেখাশুনা করছিলেন। কিন্তু অসুস্থ ও বয়োবৃদ্ধ হওয়ার কারণে তিনি তার বড় মেয়ে আকিলা সরিফা সুলতানা খানম আঞ্জুয়ারা ও তার স্বামী আনোয়ার হোসেন রানাকে পারিবারিক সব ব্যবসাপ্রতিষ্ঠানের তত্ত্বাবধান ও পরিচালনার জন্য মৌখিকভাবে সম্মতি দেন।

পরবর্তীকালে মেয়ে ও মেয়ের জামাতা ভয়ভীতি প্রদর্শন করে তার কাছ থেকে স্ট্যাম্প, ব্যাংকের চেক, এফডিআর ও ব্যবসাপ্রতিষ্ঠানের কাগজপত্র জোরপূর্বক নিয়ে নেন। এছাড়া কিছু কাগজপত্র তৈরি করে ব্যাংক হিসাবে বর্ধিত টাকাসহ এফডিআর ভেঙে প্রায় ৫০ কোটি টাকা এবং ব্যাংক হিসাব থেকে আরও ৫০ কোটি টাকা উত্তোলনপূর্বক আত্মসাৎ করেন।

এ ঘটনায় গত ৫ অক্টোবর মেয়ে ও মেয়ের জামাইসহ পাঁচ জনের বিরুদ্ধে বগুড়া সদর থানায় মামলা করেন দেলওয়ারা বেগম। এ মামলায় গত ১১ অক্টোবর আনোয়ার ও আঞ্জুয়ারাকে আগাম জামিন না দিয়ে নিম্ন আদালতে আত্মসমর্পণের নির্দেশ দেন হাইকোর্ট। ওই নির্দেশ মোতাবেক দুই আসামি ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে আত্মসমর্পণ করে জামিন চান। গত ২৫ অক্টোবর বগুড়ার চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট জামিন নামঞ্জুর করে স্বামী-স্ত্রীকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন। এরপর গত ৩ ডিসেম্বর জেলা ও দায়রা জজ আদালত আসামিদের জামিন আবেদন খারিজ করে দেন।




ডেল্টা টাইমস্/সিআর/জেড এইচ

« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »







  সর্বশেষ সংবাদ  
  সর্বাধিক পঠিত  
  এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ  
সম্পাদক ও প্রকাশক: মো: জাহাঙ্গীর আলম, নির্বাহী সম্পাদক: মো: আমিনুর রহমান
প্রধান কার্যালয়: মহাখালী ডিওএইচএস, রোড নং-৩১, বাড়ী নং- ৪৫৫, প্রকাশক কর্তৃক বিসমিল্লাহ প্রিন্টিং প্রেস থেকে মুদ্রিত
২১৯ ফকিরাপুল (১ম লেন নীচ তলা), মতিঝিল থেকে প্রকাশিত।  বাণিজ্যিক কার্যালয়: ৩৭/২ জামান টাওয়ার (১৫ তলা), পুরানা পল্টন, ঢাকা-১০০০।

ফোন: ০২-৪৭১২০৮৬১, ০২-৪৭১২০৮৬২, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
সম্পাদক ও প্রকাশক: মো: জাহাঙ্গীর আলম, নির্বাহী সম্পাদক: মো: আমিনুর রহমান
প্রধান কার্যালয়: মহাখালী ডিওএইচএস, রোড নং-৩১, বাড়ী নং- ৪৫৫, প্রকাশক কর্তৃক বিসমিল্লাহ প্রিন্টিং প্রেস থেকে মুদ্রিত
২১৯ ফকিরাপুল (১ম লেন নীচ তলা), মতিঝিল থেকে প্রকাশিত।  বাণিজ্যিক কার্যালয়: ৩৭/২ জামান টাওয়ার (১৫ তলা), পুরানা পল্টন, ঢাকা-১০০০।
ফোন: ০২-৪৭১২০৮৬১, ০২-৪৭১২০৮৬২, ই-মেইল : [email protected], [email protected]