রোববার ১১ এপ্রিল ২০২১ ২৭ চৈত্র ১৪২৭

ছেলের বিয়ে,তাও নিজের মেয়ের সঙ্গে!
ডেল্টা টাইমস্ ডেস্ক :
প্রকাশ: বুধবার, ৭ এপ্রিল, ২০২১, ১:১০ পিএম আপডেট: ০৭.০৪.২০২১ ১:১৫ পিএম | অনলাইন সংস্করণ

ছেলের বিয়ে, তাও নিজের মেয়ের সঙ্গে। এমনই এক অবিশ্বাস্য ঘটনা ঘটে গেছে চীনে। এক মায়ের মেয়ে হারিয়ে গিয়েছিলেন অনেক বছর আগে। এক পর্যায়ে তিনি একটি ছেলে দত্তক নেন। তাকে বড় করে তোলেন। বিয়ের উপযুক্ত হয় তার ছেলে। তাকে বিয়ে দিতে নিয়ে যান। সেখানেই ঘটে যায় হৃদয় নাড়িয়ে দেয়া ঘটনা। তিনি দেখতে পান তার ছেলে স্ত্রী হিসেবে যে মেয়েকে বিয়ে করতে যাচ্ছে, সে আর কেউ নয়- অনেক বছর আগে হারিয়ে যাওয়া তার সেই মেয়ে।
ছেলের বিয়ে,তাও নিজের মেয়ের সঙ্গে!

ছেলের বিয়ে,তাও নিজের মেয়ের সঙ্গে!

জন্মের সময়ের চিহ্ন দিয়ে তিনি তাকে শনাক্ত করেন। এরপর মা-মেয়ে আনন্দে হাউমাউ করে কাঁদতে থাকেন। একজন আরেকজনকে জড়িয়ে ধরেন অনেক সময়। বার বার মেয়ে তার মার মুখ দেখছিলেন- মা কি সে রকমই আছেন! মা তার মেয়ের দিকে তাকিয়ে ভাবছিলেন- পৃথিবীর শ্রেষ্ঠ উপহার তিনি ফিরে পেলেন। ছেলের বিয়ে, তাও নিজের মেয়ের সঙ্গে- এ আনন্দে ওই নারী যেন উদ্বেলিত হয়ে পড়েন। এই বিয়েতে তিনি কোনো আপত্তি করেননি। কারণ, ছেলে বা বর তার আপন ছেলে নয়, দত্তকপুত্র। তাই এ বিয়েতে কোনো সমস্যাই হলো না। জিয়াংসু প্রদেশের সুঝৌউতে এ ঘটনা ঘটেছে গত ৩১শে মার্চ।

টাইমস নাউ নিউজ অনুযায়ী, ওই নারী দীর্ঘ সময় হারিয়ে যাওয়া মেয়েকে খুঁজে বেরিয়েছেন। তাকে কোথাও না পেয়ে শেষ পর্যন্ত ওই ছেলেকে দত্তক নেন। কিন্তু মায়ের মন! তিনি যেখানেই যান, সেখানেই নিজের সেই মেয়েকে খুঁজে ফেরেন। তাই ছেলের বিয়ে দিতে গিয়ে তার নজরে পড়ে কনের হাতের একটি জন্মদাগ। তার সন্দেহ হয়। তার মেয়ের হাতেও তো এমন জন্মদাগ ছিল। তিনি সঙ্গে সঙ্গে কনের পিতামাতার কাছে যান। তাদের কাছে জানতে চান, তারা এই মেয়েকে কোথাও থেকে দত্তক এনেছেন কিনা। এমন প্রশ্নে অনেকদিন পিছনে ফিরে যান তারা। কনের পিতামাতা তাকে জানান, এখন থেকে ২০ বছর আগে রাস্তার পাশে পেয়েছিলেন এই মেয়েটিকে।

তারপর তাকে তারাই পালছেন। এ কথা শুনে কান্নায় ভেঙে পড়েন কনে। কারণ, তিনি কোনোদিন কল্পনাও করতে পারেননি তাকে যারা পালছেন, তারা তার আপন পিতামাতা নয়। বরের মা তাকে বর্ণনা দেন নিজের হারিয়ে যাওয়া মেয়ে সম্পর্কে। এমনিতেই বিয়ের অনুষ্ঠান হয় আনন্দের, তার সঙ্গে কনে তার নিজের মাকে ফিরে পেয়ে সেই আনন্দ যেন আরো কয়েকগুন বেড়ে গেল।




ডেল্টা টাইমস্/সিআর/জেড এইচ

« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »







  সর্বশেষ সংবাদ  
  সর্বাধিক পঠিত  
  এই ক্যাটেগরির আরো সংবাদ  
সম্পাদক ও প্রকাশক: মো: জাহাঙ্গীর আলম, নির্বাহী সম্পাদক: মো: আমিনুর রহমান
প্রধান কার্যালয়: মহাখালী ডিওএইচএস, রোড নং-৩১, বাড়ী নং- ৪৫৫, প্রকাশক কর্তৃক বিসমিল্লাহ প্রিন্টিং প্রেস থেকে মুদ্রিত
২১৯ ফকিরাপুল (১ম লেন নীচ তলা), মতিঝিল থেকে প্রকাশিত।  বাণিজ্যিক কার্যালয়: ৩৭/২ জামান টাওয়ার (১৫ তলা), পুরানা পল্টন, ঢাকা-১০০০।

ফোন: ০২-৪৭১২০৮৬১, ০২-৪৭১২০৮৬২, ই-মেইল : [email protected], [email protected]
সম্পাদক ও প্রকাশক: মো: জাহাঙ্গীর আলম, নির্বাহী সম্পাদক: মো: আমিনুর রহমান
প্রধান কার্যালয়: মহাখালী ডিওএইচএস, রোড নং-৩১, বাড়ী নং- ৪৫৫, প্রকাশক কর্তৃক বিসমিল্লাহ প্রিন্টিং প্রেস থেকে মুদ্রিত
২১৯ ফকিরাপুল (১ম লেন নীচ তলা), মতিঝিল থেকে প্রকাশিত।  বাণিজ্যিক কার্যালয়: ৩৭/২ জামান টাওয়ার (১৫ তলা), পুরানা পল্টন, ঢাকা-১০০০।
ফোন: ০২-৪৭১২০৮৬১, ০২-৪৭১২০৮৬২, ই-মেইল : [email protected], [email protected]